সারাদেশ

বাংলাদেশের ইকো ট্যুরিজমের সম্ভাবনা : পর্ব ৫

মোঃ দেলোয়ার হোসেন।

প্রকাশিত: ২১:৪৯, ৪ আগস্ট ২০২২; আপডেট: ২১:৫০, ৪ আগস্ট ২০২২

বাংলাদেশের ইকো ট্যুরিজমের সম্ভাবনা : পর্ব ৫

বাংলাদেশের ইকো ট্যুরিজমের সম্ভাবনা : পর্ব ৫

খ. আঞ্চলিক খাবার ও ইকো ট্যুরিজম

দেশের প্রত্যেক অঞ্চলের নিজস্ব কিছু খাবার রয়েছে। আবার রান্নাতেও রয়েছে ভিন্নতা। যার স্বাদ অন্য জায়গাতে সচরাচর পাওয়া যায় না। সংগ্রহ করতে চাইলেও সবসময় তা সম্ভব হয় না। ইকোট্যুরিজমের মাধ্যমে আঞ্চলিক খাবার গুলো পরখ করার সবচেয়ে ভালো মাধ্যম হতে পারে।

আঞ্চলিক খাবারের সাথে ইকোট্যুরিজমের নিরবর সম্পর্ক রয়েছে। কেউ কোন অঞ্চলে গেলে সে অঞ্চলের খাবার গুলো খেতে চায় আগ্রহের সাথে। সম্ভব হলে ফেরার পথে বাড়ির জন্যও সংগ্রহ করে। এসব খাবার স্থানীয় ব্র্যান্ডিং বাড়াতে ভূমিকা রাখে।

বাঙালিদের বেশিরভাগ মানুষই রসনাবিলাস। তাই খাবার দেখলে খেতে ইচ্ছে করে এবং খাবার খেয়ে উপভোগ করে। আঞ্চলিক খাবার গুলোর ইতিহাস, ঐতিহ্য এবং প্রচলিত গল্প গুলোও হয় অসাধারণ। তাই আঞ্চলিক খাবার কেন্দ্র করে গড়ে উঠতে পারে ইকোট্যুরিজম।

ক্ষুদ্র নৃগোষ্ঠীদের খাবারের প্রতি মানুষের বিশেষ আগ্রহ রয়েছে। তাই পার্বত্য চট্টগ্রাম ও যেসব স্থানে নৃগোষ্ঠীদের বসবাস রয়েছে সেসব স্থানে ভ্রমণ করে খাবারের স্বাদ ও অভিজ্ঞতা নিতে পারে ভ্রমণকারীরা। তাছাড়াও চট্টগ্রাম ও সিলেট অঞ্চলের খাবার দাবার বেশ বৈচিত্র রয়েছে। ইকোট্যুরিজমের আওতায় তা পরখ করার সুযোগ ও সম্ভাবনা রয়েছে।

গ. ফল

ফল উৎপাদনের জন্য আমাদের আবহাওয়া ও মাটি খুবই উপযুক্ত। ১০ টি প্রধান ফল সহ দেশের বাণিজ্যিক ভাবে ১৮ জাতের ফল উৎপাদন হয়। আম, কাঁঠাল, পেয়ারা, লিচু, কলা, কুল, নারিকেল, লেবু, আনারস, পেঁপে, বাঙ্গি, তরমুজ, জাম, গোলাপ জাম, জামরুল, তেঁতুল, কদবেল, বেল, সফেদা, কামরাঙা, লুকিলুকি, আঁশফল ইত্যাদি। তবে সারাদেশে সমান ভাবে উৎপাদন হয় না এসব ফল। মাটি ভেদে ফলন হয়। যেমন : আম সারাদেশে উৎপাদন হলেও রাজশাহী, চাঁপাইনবাবগঞ্জ, নওগাঁ, সাতক্ষীরা জেলা গুলোতে বেশি উৎপাদন হয়। যা বাণিজ্যিক চাহিদার সিংহভাগ পূরণ করে।

আমের মৌসুমে চাঁপাই, নওগাঁ, রাজশাহীর মতো জেলা গুলোতে ইকোট্যুরিজমে ভ্রমণ করা যায়। তাহলে দেখার ও জানার সুযোগ হবে তারা কিভাবে চাষ করে, কিভাবে যত্ন নেয়, কেমন ফলন-বিক্রি হয় ইত্যাদি। আবার সরাসরি গাছ থেকে নিজে পেরে খাওয়ার মাধ্যমে স্বাদ নেওয়া যায়।

লেখকঃ ফ্রিল্যান্সার লেখক ইপ্রফিট এবং স্বত্বাধিকারী, আওয়ার শেরপুর ডটকম।
 

সিনথিয়া

সম্পর্কিত বিষয়:

সর্বাধিক জনপ্রিয়