সফল যারা

সালমা নেহার শক্তি পার্সোনাল ব্র্যান্ডিং

মোঃ দেলোয়ার হোসেন।

প্রকাশিত: ১৭:০৩, ৬ আগস্ট ২০২২; আপডেট: ১৭:১১, ৬ আগস্ট ২০২২

সালমা নেহার শক্তি পার্সোনাল ব্র্যান্ডিং

সালমা নেহার শক্তি পার্সোনাল ব্র্যান্ডিং

পেজ বা ওয়েবসাইট ছাড়াই শুধু মাত্র ফেসবুকে পরিচিত হয়ে মিলিয়নার হয়েছেন উদ্যোক্তা সালমা নেহা। তার উদ্যোগের নাম টেস্টবিডি। শুরুটা চাঁপাইনবাবগঞ্জের ঐতিহ্যবাহী আদি চমচম দিয়ে হলেও আম, লিচু, পনির ও সিল্ক নিয়ে কাজ করছেন তিনি। শুরুটা ছিল মাত্র ১ হাজার টাকা দিয়ে। ৫ মাসের ব্যবধানে নেহার বিক্রি হয়েছিল ১০ লাখ টাকার বেশি।

পেজ বা ওয়েবসাইট ছাড়া ব্যবসা করলেন কীভাবে? এ প্রশ্নের জবাবে সালমা নেহা বলেন, ২০১৬ সালে যখন কাপড় নিয়ে কাজ শুরু করেছি তখন পেজ ছিল। কিন্তু নতুন করে ২০২০ সালে শুরু করার সময় এসব কিছুই ছিল না শুধু নিজের পরিচিতি ছাড়া। তখন ই-কমার্স অ্যসোসিয়েশন অব বাংলাদেশ (ই-ক্যাব) এর সাবেক ও প্রতিষ্ঠাতা সভাপতি রাজিব আহমেদ স্যারের দিকনির্দেশনায় ফেসবুকে একটিভ হয়ে নিজেকে পরিচিত করেছি। সে পরিচিতি আর বিশ্বাস থেকে আমার সকল ক্রেতাগণ ইনবক্সে অর্ডার দেন। বর্তমানে আমার পেজ-গ্রুপ এবং প্রোফাইল থেকে তারা (ক্রেতা) ইনবক্সে অর্ডার করেন। 

আপনার সিগনেচার পণ্য কোনটি? তা জানতে চাইলে নেহা জানান, আমার সিগনেচার পণ্য চাঁপাইনবাবগঞ্জের ঐতিহ্যবাহী আদি চমচম। এটি দিয়ে পরিচিতি পেয়েছি এবং ফাউন্ডেশন তৈরি করেছি। এরপর রাজিব আহমেদ স্যারের পরামর্শে যুক্ত করেছি চাঁপাইনবাবগঞ্জের আম ও লিচু। তাই আমার উদ্যোগের নাম টেস্টবিডি। এরপর স্যারের পরামর্শেই ধাপে ধাপে যুক্ত করেছি কিশোরগঞ্জের পনির ও রাজশাহী সিল্ক। যেহেতু আমার কাস্টমার বেইজড তৈরি হয়েছে তাই কোন অসুবিধা হচ্ছে না। তবে শুরুর দিকে যদি শুধু সিগনেচার পণ্যের ফোকাস না করতাম তাহলে আজকের অবস্থান হতো না।

একসাথে এতো ধরণের পণ্য নিয়ে কাজ করতে কোন অসুবিধা হয়? এ প্রশ্নের উত্তরে উদ্যোক্তা নেহা বলেন, আমার ক্রেতাদের সাথে বেশ সম্পর্ক। যেহেতু তারা আমার থেকে নিয়মিত কেনাকাটা করেন তাই নতুন কোন পণ্যের সন্ধান পেলে অর্ডার করতে দেরি করে না। আম মৌসুমী ফল। মৌসুমে প্রত্যেক ঘরেই খাওয়া হয় আম। নিয়মিত রান্না, নাস্তা বা স্ন্যাক্সের সাথে ব্যবহার করা যায় পনির। কাস্টমারদের বেশিভাগ যেহেতু নারী তাই তারা থ্রিপিস বা শাল ব্যবহার করেন। তাই আস্থা, ভরসা আর ভালোলাগা থেকে হাফ সিল্ক বিক্রি হচ্ছে প্রোফাইলে।

টেস্টবিডি নামে ফেসবুক গ্রুপ রয়েছে সালমা নেহার। যেখানে খাবারের অনলাইন উদ্যোক্তা ও ক্রেতাদের সমাগম। নিজের বিজনেস গ্রুপ হলেও সকলের জন্য উন্মুক্ত করে দিয়েছেন সালমা নেহা। এটি নেহার পরিচিতি বাড়াতে যেমন ভূমিকা রাখছে তেমনি অনলাইনে খাবারের উদ্যোক্তাদের একত্রিত হতে ভূমিকা রাখছেলেখকঃ

ফ্রিল্যান্সার লেখক ইপ্রফিট এবং স্বত্বাধিকারী, আওয়ার শেরপুর ডটকম।

সিনথিয়া

সর্বাধিক জনপ্রিয়